1. news@priyobanglanews24.com : PRIYOBANGLANEWS24 :
June 14, 2024, 6:47 pm

দোহারে মুয়াজ্জিনসহ সাত মুসল্লীকে জখম

নিজস্ব প্রতিবেদক। প্রিয়বাংলা নিউজ২৪
  • Update Time : Friday, April 10, 2020
  • 10667 Time View

করোনা সংক্রমন রোধে মসজিদে সরকারের নির্দেশনা মোতাবেক নামাজ আদায়কে কেন্দ্র করে ঢাকার দোহার উপজেলার কার্তিকপুর বাজার মসজিদের মুয়াজ্জিন সহ সাত মুসল্লীকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে জখম করা হয়েছে।
অভিযোগ উঠেছে, উপজেলার কুসুমহাটি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফরহাদ হোসেন, তার ভাই সাবেক চেয়ারম্যান পান্নু মাদবর, চুন্নু মাদবর, ও তাদের সহযোগীরা এ ঘটনা ঘটিয়েছে।
ঘটনার পরপর ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন চর মাহমুদপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো.শাহ্ আলম সহ পুলিশের একটি দল। এ নিয়ে ওই এলাকায় সাধারন মানুষের মধ্যে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী শুক্রবার জুম্মার নামাজে সর্বোচ্চ দশজন জামাত আদায় করতে পারবে। কিন্তু ওই মসজিদে আনুমানিক ১৫/১৬ জন মুসল্লী উপস্থিত হন। আগে থেকেই কার্তিকপুর বাজার মসজিদের ঈমাম ও মুয়জ্জিনরা সরকারের নীতিমালা অনুযায়ী মুসল্লীদের জানিয়ে দেন বেশি লোক না আসার জন্য। তার পরেও ৫/৬ জন লোক বেশি হওয়ায় মুয়াজ্জিন আবু সাঈদের কাছে বেশি লোক হওয়ার কারন জানতে চায় চুন্নু মাদবর সহ তার সাথে থাকা কয়েকজন। এ নিয়ে বাকবিতন্ডার একপর্যায়ে চুন্নু মাদবরের ভাই আওয়ামী লীগ নেতা ফরহাদ হোসেন ও তার আরেক ভাই ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান পান্নু সহ বেশ কয়েকজন মসজিদে ছুটে এসে মসজিদের মুয়াজ্জিন আবু সাঈদ, মুসল্লী আনোয়ার হোসেন, তার ভাই আবুল হোসেন, জিন্নত, এজাজ আহমেদ মন্টু সহ অন্তত সাতজনকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে আহত করে। আহতদের মধ্যে আবুল হোসেন নামে এক মুসল্লী মসজিদের ভেতর কুরআন শরীফ পরছিলেন বলে জানান প্রত্যক্ষদর্শীরা। সেও এ হামলা থেকে বাদ যায়নি।

এ বিষয়ে মাহ্মুদপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. শাহ আলম বলেন, ঘটনাটি অত্যন্ত দুঃখজনক, ঘটনা যাই হয়েছে কিন্তু মুসল্লীদের মারার অধিকার তাদের নেই। এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

More News Of This Category