1. news@priyobanglanews24.com : PRIYOBANGLANEWS24 :
ফেইসবুকে উসকানির অভিযোগে বিএনপি নেতা নিপুনের বিরুদ্ধে জিডি • PRIYOBANGLANEWS24
রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৭:২৭ অপরাহ্ন

ফেইসবুকে উসকানির অভিযোগে বিএনপি নেতা নিপুনের বিরুদ্ধে জিডি

আসাদুজ্জামান সুমন, সিনিয়র প্রতিবেদক
  • আপডেটের সময় : শনিবার, ৮ অক্টোবর, ২০২২
  • ২০৬ বার দেখা হয়েছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক লাইভে  উসকানিমূলক বক্তব্যের অভিযোগ এনে ঢাকার  কেরানীগঞ্জ উপজেলায় বিএনপি নেতা নিপুন রায় চৌধুরীর বিরুদ্ধে সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়েছে।

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ শাহ্জামান শুক্রবার রাতে জানান, উপজেলা আগানগর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর শাহ বৃহস্পতিবার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় জিডিটি করেছেন।

নিপুন রায় চৌধুরী বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ছাড়াও দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার সভাপতির দায়িত্বে রয়েছেন।

জিডির বিষয়ে আগানগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর শাহ বলেন, বুধবার রাতে দুর্গাপূজা শেষে বুড়িগঙ্গা নদীতে প্রতিমা বিসর্জন দেওয়ার সময় তুচ্ছ ঘটনার জেরে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের সঙ্গে  অনাকাঙ্ক্ষিত ভুল বোঝাবুঝির ঘটনাকে কেন্দ্র করে বিএনপি নেতা নিপুন রায় চৌধুরী ফেইসবুকে পোস্ট দেন ও লাইভে আসেন। তিনি বলেছেন, আমি নাকি প্রতিমা বিসর্জনে বাধা দিয়েছি।

তার ওই মন্তব্য সম্পূর্ণ মিথ্যা, ভিত্তিহীন ও বানোয়াট। নিপুন রায় চৌধুরী মিথ্যা তথ্য দিয়ে ফেইসবুক পোস্ট ও লাইভ করে সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করেছেন। মূলত এর প্রতিবাদেই তাঁর বিরুদ্ধে থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছি।

এ বিষয়ে নিপুন রায় চৌধুরীর বলেন, প্রতিমা বিসর্জনের সময় যে প্রতিবন্ধকতা তৈরি করা হয়েছিল আমি সেটাই বলেছি। আমার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ আনা হয়েছে সেটা সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট ও অসত্য। আমি এর নিন্দা জানাই।

সরকার প্রজ্ঞাপন দিয়ে রাত ৮টার মধ্যে প্রতিমা বিসর্জনের কথা বলেছে। কিন্তু কেরানীগঞ্জে এই প্রতিবন্ধকতার কারণে রাত সাড়ে ১০টায় প্রতিমা বিসর্জন হয়েছে। আমি সেটাই বলেছি। এ ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি করেন এই বিএনপি নেতা।

তবে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা পূজা উদ্‌যাপন কমিটির সভাপতি অনুপ কুমার বর্মণ বলেন, বুধবার রাতে প্রতিমা বিসর্জনের সময় যানজট নিরসন করতে গিয়ে ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর ও আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের মধ্যে অনাকাঙ্ক্ষিত ভুল বুঝাবুঝির ঘটনা ঘটে। এতে প্রতিমা বিসর্জনের কাজ কিছু সময় বন্ধ থাকে। ইউপি চেয়ারম্যান প্রতিমা বিসর্জনে কোনো রকমের বাধা দেননি বরং সহযোগিতা করেছেন।

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার ওসি শাহ্জামান আরও বলেন, এ ঘটনায় তদন্ত চলছে। তদন্ত শেষে প্রয়োজনে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এখান থেকে আপনার সোস্যাল নেটওয়ার্কে শেয়ার করুন

Leave a Reply

ক্যাটাগরির আরো খবর
© এই ওয়েবসাইটি প্রিয়বাংলা২৪নিউজ.কম দ্বারা সংরক্ষিত।
পিবি লিংক এর একটি অঙ্গ প্রতিষ্ঠান