1. news@priyobanglanews24.com : PRIYOBANGLANEWS24 :
  2. sujitpauldhaka@gmail.com : Sujit Kumer Paul :
বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ০৭:২৪ অপরাহ্ন

সিরিয়াল রেপিস্ট মজনু!

প্রিয়বাংলা নিউজ২৪
  • আপডেট সময়ঃ বুধবার, ৮ জানুয়ারী, ২০২০
  • ৪৬৪ জন নিউজটি দেখা হয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীকে ধর্ষনের অভিযুক্ত গ্রেপ্তারকৃত ব্যক্তি মজনু একজন সিরিয়াল রেপিস্ট বলে জানায় র‌্যাব। এরআগেও সে প্রতিবন্ধী নারী ও ছিন্নমূল নারীদের ধর্ষণ করে। আজ বুধবার দুপুরে রাজধানীর কারওয়ান বাজারে অবস্থিত র‌্যাব মিডিয়া সেন্টারে এক সাংবাদিক সম্মেলনে এসব তথ্য জানায় র‌্যাব।

র‌্যাব জানায়, ধর্ষণের পর সে ভিকটিমের মোবাইল নিয়ে যায় এবং তার পরিচিত এক মহিলা অরুণার কাছে মোবাইলটি বিক্রি করে। তারপর সে নরসিংদী চলে যায়। কাল সারাদিন সে বনানী রেল স্টেশনে ছিল। আজ সকালে সে শেওড়া থেকে গ্রেফতার হয়।

র‌্যাব জানায়, তারা প্রথমে মজুনুর ছিনিয়ে নেয়া ভিকটিমের মোবাইল ট্র্যাক করে খাইরুল নামে এক ব্যক্তিকে আটক করে তারপর তার দেয়া তথ্যমতে তারা অরুণাকে গ্রেফতার করে। এরপরই তারা মজুনকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।

ধর্ষণের সময় সে ঐ শিক্ষার্থীকে কয়েকবার হত্যারও হুমকি দেয় বলে জানায় র‌্যাব। জিজ্ঞাসাবাদে মজুন একাই ধর্ষণ করে বলেও জানায় র‌্যাবকে। একইসাথে সে মাদকাসক্ত বলেও জানায় র‌্যাবকে।

রোববার রাজধানীর কুর্মিটোলায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বাস থেকে নামার পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীকে ধর্ষন করার দায়ে অভিযুক্ত ধর্ষককে সকালে রাজধানীর শেওড়া থেকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। পরে সেই যুবকের ছবি তুলে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীকে দেখানো হয়। তিনি তাকে ধর্ষক বলে শনাক্ত করেছেন।

প্রসঙ্গত, রোববার রাতে রাজধানীর কুর্মিটোলায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বাস থেকে নামার পর ভুক্তভোগী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নারী শিক্ষার্থীকে অজ্ঞাতপরিচয় এক ব্যক্তি পেছন থেকে আক্রমণ করে। এ সময় তাকে মারধরও করা হয়। এক পর্যায়ে তিনি অচেতন হয়ে পড়েন। অচেতন অবস্থায় তাকে ধর্ষণ করা হয়। রাত ১০টার দিকে জ্ঞান ফেরার পর তিনি সিএনজিচালিত অটোরিকশা নিয়ে এক বান্ধবীর বাসায় যান। এরপর সহপাঠীরা তাকে ক্যাম্পাসে নিয়ে আসেন। সেখান থেকে তাকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের ঘটনা সারা দেশে আলোচনা ছড়িয়ে পরে।

এই নিউজটি সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Leave a Reply

এই ক্যাটাগরির আরও নিউজ
কপিরাইট © ২০১৯-২০২০
পিবি লিংক এর একটি অঙ্গ প্রতিষ্ঠান